fbpx

Desh Amar

Online news Portal

ভারতের উত্তরপ্রদেশে এক মুসলিম যুবক মন্দিরে ঢুকে পানি পান করায় বেধড়ক মারধরের শিকার হয়েছেন। রাজ্যের গাজিয়াবাদে তোলা সম্প্রতি একটি ভিডিও অনলাইনে ভাইরাল হয়েছে। সেখানে দেখা যায় এক যুবককে বেধড়ক মা;রছেন এক ব্যক্তি। আ;ক্রা;ন্ত যুবকের ‘অপরাধ’- তিনি মুসলিম হয়েও মন্দিরের পানি পান করেছেন। খবর আনন্দবাজার প;ত্রিকার।

এ ঘটনায় বিভিন্ন মহল থেকে সমালোচনা শুরু হওয়ায় শেষে অভিযুক্ত ব্যক্তিকে গ্রেফতার করে পুলিশ। তার বিরুদ্ধে অভিযোগও দায়ের করা হয়েছে।

পুলিশ জানিয়েছে, অভিযুক্তের নাম শিরিং নন্দন যাদব। তিনি বিহারের ভাগলপুরের বাসিন্দা। কর্মসূ;ত্রে তিনি উত্তরপ্রদেশে রয়েছেন। ঘটনার তদ;ন্ত শুরু করা হয়েছে।

ভিডিওতে দেখা যায়, স্থানীয় একটি মন্দিরে পানি খেতে ঢুকেছেন ওই যুবক। তিনি বেরিয়ে আসার পর অভিযু;ক্ত শিরিং ওই যুবককে তার নাম ও বাবার নাম জি;জ্ঞা;সা করেন। তারপর প্রশ্ন করেন, কেন তিনি মন্দিরে ঢুকেছিলেন। যুবক উত্তর দেওয়ার পরেই শুরু হয় মারধর। চড়, লাথি, ঘু;ষিতে আ;ক্রা;ন্ত যুবক বারবার ছেড়ে দেওয়ার অনুরোধ জানালেও টানা মারধর চলতেই থাকে। সেই ভিডিও ভাইরাল হওয়ার পর তা আলোচনায় আসে। সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে তীব্র প্রতিবাদ শুরু হওয়ায় ব্যবস্থা নিতে বাধ্য হয় পুলিশ।

বছর কয়েক আগে এই উত্তরপ্রদেশেরই দাদরি এলাকায় মহম্মদ আখলাক নামক এক ব্য;ক্তিকে ফ্রিজে গরুর মাংস রাখার ‘অপরাধে’ পিঠিয়ে মে;রে ফেলা হয়েছিল।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *