আল্লাহ সাক্ষী, আমার কোনো দোষ ছিল না : মাহি

আল্লাহ সাক্ষী, আমার কোনো দোষ ছিল না : মাহি

অন্তর্জালে ভাইরাল ফোনালাপের বিষয়ে মুখ খুলেছেন ঢাকাই সিনেমার জনপ্রিয় চিত্রনায়িকা মাহিয়া মাহি। সৌদি আরবের মক্কা শহর থেকে এক ভিডিও বার্তায় এই চিত্রনায়িকা বলেছেন, নিজের আত্মসম্মানবোধে আঘাত পাওয়ায় সেদিন কিছু বলার ভাষা ছিল না তাঁর। সে কারণে কোনো প্রতিবাদ করননি।

সম্প্রতি তথ্য ও সম্প্রচার প্রতিমন্ত্রী ডা. মুরাদ হাসান ও ঢাকাই সিনেমার জনপ্রিয় চিত্রনায়িকা মাহিয়া মাহির একটি ফোনালাপ অন্তর্জালে ভাইরাল হয়েছে, যেখানে প্রতিমন্ত্রী ফোনে চিত্রনায়িকা মাহিয়া মাহির সঙ্গে ‘অশ্লীল বাক্য’ ব্যবহার করে কথা বলেছেন।

এ প্রসঙ্গে সোমবার বাংলাদেশ সময় সাড়ে ৯টায় এক ভিডিও বার্তায় চিত্রনায়িকা মাহিয়া মাহি বলেছেন, ‘আমি সেদিনও ভীষণ বিব্রত ছিলাম, নিজের আত্মসম্মানবোধ কতটুকু… সেখানে কতটুকু আঘাত লেগেছে সেটা শুধু আমি জানি আর আমার আল্লাহ জানে। এবং আজকেও আমি ভীষণভাবে বিব্রত। আরও একবার নিজে তো ছোট হয়েছি, দেশবাসীর কাছে আরও একবার ছোট হলাম। কিন্তু আপনারা নিজের থেকে একবার চিন্তা করে দেখবেন, এই ভাষার প্রতিউত্তর বা এই ব্যবহারের প্রতিউত্তর আমার আসলে কী দেওয়া উচিত ছিল। আদৌ আমি আসলে… সেদিন আমার কিছু বলার ভাষা ছিল না। আমি সেজন্যই সেদিন কোনো প্রতিবাদ করিনি।’

মাহি আরও যুক্ত করেছেন, ‘আমার নিজের মতো করে আমার মনে হয়েছে যেভাবে পাশ কাটিয়ে যাওয়া উচিত, চুপ থেকেছি, এটা দুই বছর আগের ঘটনা। আমি বরাবরের মতোই সব সময় আল্লাহর কাছে বলি, আমি কষ্ট পেয়েছি। যার মাধ্যমে কষ্ট পেয়েছি, কোনো না কোনো একদিন ঠিকই সেটার ফলাফল পেয়েছেন। এটা প্রমাণিত, আলহামদুলিল্লাহ…আল্লাহ সাক্ষী, আমার কোনো দোষ ছিল না। আমি জাস্ট একটা পরিস্থিতির শিকার ছিলাম।’

সম্প্রতি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে অসৌজন্যমূলক বক্তব্য দেওয়ায় তথ্য ও সম্প্রচার প্রতিমন্ত্রী ডা. মুরাদ হাসানকে মঙ্গলবারের মধ্যে মন্ত্রিসভা থেকে পদত্যাগ করতে বলেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

ভাইরাল